মাত্র পাওয়া

করোনার লক্ষণ দেখা দিলে উপুড় হয়ে শোবেন, কারণ…

| ২৫ মার্চ ২০২০ | ৯:২৮ অপরাহ্ণ

করোনার লক্ষণ দেখা দিলে উপুড় হয়ে শোবেন, কারণ…

সারা বিশ্ব কাঁপছে করোনা আতঙ্কে। নীরবে এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে যাচ্ছেন মানুষ। এখনো পর্যন্ত উদ্ভাবন করা যায়নি কোনো ওষুধ। হাজার হাজার মানুষ মারা যাচ্ছেন এই ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে। এমন অবস্থায় গবেষকরা বলছেন, করোনার লক্ষণ দেখা দিলেই উপুড় হয়ে শোবেন। পারলে এভাবেই ঘুমান। এতে মিলবে সুফল।

চীনের ঝংডা হাসপাতালের গবেষকরা জানিয়েছেন, করোনার লক্ষণ দেখা দিলে নিচের দিকে মুখ করে ঘুমানোর পরামর্শ দেওয়া হচ্ছে। কারণ এই পদ্ধতিতে ঘুমানো ফুসফুসের জন্য ভালো। কৃত্রিম শ্বাস-প্রশ্বাস যন্ত্র লাগানো অবস্থায় ১২ জন করোনা রোগীকে নিয়ে একটি গবেষণা করা হয়েছে। সেই গবেষণায় দেখা যায়, এই পদ্ধতি ঘুমানো করোনা রোগীদের ফুসফুসের কার্যক্ষমতা বাড়ে।

গবেষণাটির নেতৃত্ব দিয়েছেন প্রফেসর হাইবো কিউ। তিনি জানান, করোনায় আক্রান্ত মারাত্মক অবস্থার রোগীদের নিয়ে এই গবেষণাটি চালানো হয়েছে। এতে পাওয়া গেছে ফুসফুসের আচরণের বিবরণ। করোনা আক্রান্ত রোগী যদি উপুর হয়ে ঘুমান তাহলে ফুসফুসের কার্যক্ষমতা বাড়ে। শ্বাস-প্রশ্বাস নিতে পারে। তিনি বলেন, আশা করি এই গবেষণার ফল জানার পর মানুষ উপুড় হয়ে শোয়ার বিষয়টি নিয়ে চিন্তা করবেন।

গবেষণাটির সহ-রচয়িতা প্রফেসর চুন প্যান বলেন, উপুড় হয়ে শোয়ে ঘুমানো পদ্ধতি শ্বাস-প্রশ্বাসে সহায়তা করতে পারে। যখন করোনা আক্রান্ত রোগী উপুড় হয়ে শোন তখন তার ফুসফুসের কার্যক্ষমতা বাড়ে। তাই করোনার লক্ষণ দেখা দিলেই উপুড় হয়ে শোতে পারেন। এই বিষয়টি চিন্তা করে করোনা আক্রান্ত মারত্মক অবস্থার রোগীর ক্ষেত্রেও এ পদ্ধতিটি প্রয়োগ করা যেতে পারে। 

এদিকে, সারা বিশ্বে এখন করোনায় আক্রান্তের সংখ্যা চার লাখ ৩৫ হাজার ছুঁই ছুঁই। আক্রান্তদের মধ্যে ১৯ হাজার ছয়শ সাত জন মারা গেছেন। তবে সুস্থ হয়েছেন এক লাখ ১১ হাজার আটশ ৫৬ জন। এরমধ্যে শুধুই চীনেই সুস্থ হয়েছেন ৭৩ হাজার ছয়শ ৫০ জন। দেশটিতে করোনায় মোটা আক্রান্তের সংখ্যা ৮১ হাজার দু’শ ১৮ জন।

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

স্বাগতম – বিরাজমান ডট কম

০৫ ফেব্রুয়ারি ২০২০

আকাইর্ভ

সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র শনি রবি
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
৩১  

আজকের দিন-তারিখ

  • বৃহস্পতিবার (বিকাল ৩:০১)
  • ১৩ই আগস্ট ২০২০ খ্রিস্টাব্দ
  • ২৩শে জিলহজ ১৪৪১ হিজরি
  • ২৯শে শ্রাবণ ১৪২৭ বঙ্গাব্দ (বর্ষাকাল)

হাসবি রাব্বি জাল্লাল্লাহ

চোখের জল ধরে রাখা অসম্ভব:– ফজলুর রহমান বাবু

error: Content is protected !!