মাত্র পাওয়া

শ্রীপুরে মেয়ে, স্ত্রী ও বাবাকে কুপিয়ে গুরুতর আহত

| ০৯ সেপ্টেম্বর ২০২০ | ৮:০৬ অপরাহ্ণ

শ্রীপুরে মেয়ে, স্ত্রী ও বাবাকে কুপিয়ে গুরুতর আহত

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ  গাজীপুরে শ্রীপুরে নেশার টাকা না দেয়ায় বাবা, স্ত্রী ও মেয়েকে কুপিয়ে গুরুতর আহত করার অভিযোগ পাওয়া গেছে এক যুবকের বিরুদ্ধে। আহত বাবা ও স্ত্রীকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
উপজেলার মাওনা উত্তরপাড়া গ্রামে বুধবার সন্ধ্যা সাড়ে ৬ টায় এ ঘটনা ঘটেছে বলে জানা যায়।

অভিযুক্ত যুবকের নাম মো. রফিকুল ইসলাম তারিম (৩৫)। আহত পিতার নাম মো. রিয়াজউদ্দিন (৬৫) , স্ত্রীর নাম মিতা আক্তার।

 এলাকাবাসী ও শ্রীপুর থানা পুলিশ সূত্রে জানা যায়, রফিুকল ইসলাম নেশার টাকা না পেয়েই পিতা রিয়াজ উদ্দিন, স্ত্রী মিতা আক্তার এবং ১৩ বছরের নিজ কন্যা সন্তান তুলিকে সুপারি কাটার ধারালো যাঁতি দিয়ে এলোপাতাড়ি কুপিয়ে পালিয়ে যায়। পিতা রিয়াজউদ্দিনকে ঘাড়ে একাধিক কুপ, স্ত্রীকে পিঠে ও হাতের তালুতে এবং মেয়েকেও কুপায়। পরে এলাকাবাসী তাঁদের আশঙ্কাজনক অবস্থায় উদ্ধার করে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠায়।

স্থানীয় খোকা মিয়া জানায়, রিয়াজউদ্দীন বাড়ির পাশেই দোকানদারী করতো। তাঁর ছেলেও দোকানে মাঝে মাঝে বসতো। ছেলে নেশাখোর এবং জুয়ারি টাইপের ছিলো। নেশার টাকা না পেয়েই বাবা, স্ত্রী ও নিজ সন্তানকে কুপিয়েছে।

শ্রীপুর থানার এস আই মো. কামরুল হাসান জানান, খবর শুনেই সরেজমিন এসেছি। প্রাথমিকভাবে জানতে পেরেছি অভিযুক্ত ছেলে রফিুকুল, নেশাখোর ও জুয়ারি। আহত বাবা ও স্ত্রীকে ময়মনসিংহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল পাঠানো হয়েছে। তদন্তসাপেক্ষে আইনী ব্যবস্থা নেয়ার পদক্ষেপ নিচ্ছি।

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

০৫ ফেব্রুয়ারি ২০২০

error: Content is protected !!